নির্ঘুম রাত নির্ঘুম রাত

যদি আপনার রাতে ঘুম না হয় তাহলে অবশ্যই এই বিষয়গুলো মেনে চলুন!

ঘুম সর্ম্পকে ভ্রান্ত ধারণার মধ্যে একটি হলো, অনেকে ভাবে রাতে কম ঘুমিয়ে দিনে তা পুষিয়ে নেয়া যায়; কিন্তু এটি একটি ভুল ধারণা। ইংরেজিতে একটি কথা আছে, Night is the time for taking rest.. আমাদের শরীর এমনভাবে তৈরি যে, এটি রাতের ঘুমকেই স্বাভাবিকভাবে নেয়। তাই রাতে ৭-৮ ঘন্টা ঘুম জরুরি।  ঘুম নিয়ে আরেকটি ভ্রান্ত ধারণা হলো, বয়স বেশি হলে ঘুমের সমস্যা দেখা দেয়। আসলে ব্যাপারটি এমন নয়। বয়স বাড়ার সাথে সাথে ঘুমের সময়ের পরিবর্তন হয়। ফলে দেখা যায়, রাতে অনেকের ঘুম আসে না। যদি নিয়মিত রুটিন মেনে একই সময়ে ঘুমানো যায়, তাহলে এরকম সমস্যা হয় না। তখন নির্দিষ্ট সময়ে ঘুম আসতে বাধ্য।

 


আরেকটি ধারণা হলো, ঘুম না আসলেও জোর করে ঘুমাতে হবে। এটিও একটি ভুল ধারণা। জোর করে ঘুমানোর চেষ্টা না করে, রিলাক্সড হয়ে, দীর্ঘশ্বাস নিতে থাকলে তাড়াতাড়ি ঘুম আসবে। এক্ষেত্রে মেডিটেশন বা লম্বা নিঃশ্বাস আমাদেরকে চিন্তামুক্ত রাখবে। ঘুম আসার জন্য এরূপ রিলাক্সেশন খুব উপযোগী। মেডিটেশন আমাদের চিন্তামুক্ত রাখে এবং ঘুম আসতে সাহায্য করে। ঘুমাতে যাওয়ার প্রস্তুতিতেই নিজের মনকে শান্ত করতে হবে এবং ধীরে ধীরে ধ্যান বা মেডিটেশন লেভেলে যেতে যেতেই আমরা একসময় প্রশান্তির ঘুমে চলে যেতে পারব। এছাড়াও খারাপ স্বপ্ন ঘুমের ব্যাঘাত ঘটায়, এক্ষেত্রেও মেডিটেশন এবং ভালো চিন্তা করা জরুরি।

 

Source: BBC

Source: BBC


আমাদের দৈনন্দিন জীবনে ঘুম অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ একটি বিষয়; কিন্তু এটি নিয়ে অনেক ধরনের সমস্যাও আছে। ভালো ঘুম আমাদের শরীর-মন সতেজ রাখে। ভালো ঘুম আমাদের জীবনকে আরও প্রশান্তিময় করে।

খুব তাড়াতাড়ি ঘুমাতে যাওয়াঃ রাতে ঘুম হয় না বলে দ্রুত ঘুমানোর আশায় আমরা অনেকেই তাড়াতাড়ি ঘুমাতে যায়। কিন্তু যা কখনোই উচিত নয়।

ভিন্ন ভিন্ন সময়ে ঘুমাতে যাওয়াঃ বিশেষজ্ঞ ডাক্তাররা বলেন, প্রতিদিন একটি নির্দিষ্ট সময় ঘুমাতে যাওয়া ও ঘুম থেকে উঠা শরীরের জন্য ভালো। ভিন্ন ভিন্ন সময়ে ঘুমালে যেকোনভাবেই আপনার ঘুমের ব্যাঘাত হবেই। এতে আপনার ঘুমের সমস্যার সৃষ্টি হতে পারে।

রাতে চা বা কফি পানঃ যাদের চা বা কফি খওয়ার অভ্যাস আছে তারা রাতে চা বা কফি পরিহার করুন। কারণ চা ও কফিতে থাকা উপাদান আপনার ঘুমের ব্যাঘাত ঘটায়।

এত ঘন্টা ঘুমাবো এই চিন্তা মাথায় নিয়ে ঘুমানোঃ একটি নির্দিষ্ট সময় পর্যন্ত ঘুমাব এই চিন্তা মাথায় নিয়ে ঘুমালে তা আপনার মস্তিষ্কে সেট হয়ে থাকে। যে কারণে আপনার ঘুমের সমস্যা হয়।

ইলিক্ট্রনিক ডিভাইস ব্যবহারঃ ঘুমাতে যাওয়ার আগে বা বেডে ইলিক্ট্রনিক ডিভাইসের ব্যবহার আপনার ঘুমের অন্তরায় সৃষ্টি করে।

 

হঠাৎ ঘুম ভেঙ্গে গেলে বিছানা ত্যাগ করাঃ আমরা সবারই হঠাৎ রাতে ঘুম ভেঙ্গে যেতেই পারে, এই অবস্থায় বিছানা ছেড়ে উঠে গেলেই ঘুমে ব্যাঘাত ঘটে।

আয়োজনটি উপকারী মনে হলে বন্ধুদের সাথে শেয়ার করতে ভুলবেন না যেন.... 



জনপ্রিয়